গ্রেপ্তারি পরোয়ানাভুক্ত আসামীর গুলিতে শ্রমিক আহত

২৫ নভেম্বর ২০২১, ০৫:৪১ পিএম | আপডেট: ২৭ নভেম্বর ২০২১, ০৪:৩১ এএম


গ্রেপ্তারি পরোয়ানাভুক্ত আসামীর গুলিতে শ্রমিক আহত

নিজস্ব প্রতিবেদক:

নরসিংদীতে গ্রেপ্তারি পরোয়ানাভুক্ত আসামীর গুলিতে বিদ্ধ হয়ে ইটভাটার এক শ্রমিক আহত হয়েছেন। বুধবার দিবাগত রাত ১১টার দিকে সদর উপজেলার আমদিয়া ইউনিয়নের দোন্দুলপাড়া গ্রামে তাকে গুলি করেন মো. শাহ আলম নামের এক ব্যক্তি। তবে ঠিক কি কারণে তাকে গুলি করা হয়েছে, তা জানা যায়নি।

গুলিবিদ্ধ ব্যক্তির নাম মানিক মিয়া (২২)। স্থানীয় একটি ইটভাটার শ্রমিক মানিক ওই ইউনিয়নের বৈলান গ্রামের মুনছুর আলীর ছেলে।  

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, বুধবার দিবাগত রাত ১১টার দিকে দোন্দুলপাড়া গ্রামে ওই শ্রমিককে পায়ে গুলি করার ঘটনা ঘটে। তাকে গুলি করা মো. শাহ আলম (৩৫) নামের ওই ব্যক্তি গ্রেপ্তারি পরোয়ানাভুক্ত একজন আসামী। গুলি করার পরই সে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন ঘটনাস্থল থেকে আহত শ্রমিককে উদ্ধার করে নরসিংদী সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানকার জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেন।

মাধবদী থানার উপপরিদর্শক ফরহাদ হোসেন জানান, মানিক মিয়া কেন এত রাতে সেখানে গিয়েছিলেন? আর কেনই বা তাকে গুলি করা হল? পূর্ব শত্রুতা নাকি কথা কাটাকাটির জের? সন্ত্রাসী মো. শাহ আলমের সঙ্গে তাঁর কিসের দ্বন্দ্ব? এই প্রশ্নগুলোর উত্তর সে সুস্থ না হওয়া পর্যন্ত জানতে পারছি না। 

নরসিংদী সদর হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) সৈয়দ আমীরুল হক জানান, বুধবার রাতে মানিক মিয়া নামের একজনকে পায়ে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় হাসপাতালে আনা হয়েছিল। প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে তাকে বাড়িতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়। 

মাধবদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সৈয়দুজ্জামান জানান, মো. শাহ আলম একজন সন্ত্রাসী ও গ্রেপ্তারি পরোয়ানাভুক্ত আসামী। সম্প্রতি সে জেল থেকে ছাড়া পেয়ে এলাকায় ফিরে এক শ্রমিককে গুলি করার ঘটনা ঘটিয়েছে। তাকে অস্ত্রসহ গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।



এই বিভাগের আরও