নরসিংদীর তিন শিল্পপ্রতিষ্ঠান পাচ্ছেন শিল্প মন্ত্রণালয় ঘোষিত পুরস্কার

০৪ জুলাই ২০২১, ০৪:০৮ পিএম | আপডেট: ২৪ জুলাই ২০২১, ০৮:৩৬ পিএম


নরসিংদীর তিন শিল্পপ্রতিষ্ঠান পাচ্ছেন শিল্প মন্ত্রণালয় ঘোষিত পুরস্কার

নিজস্ব প্রতিবেদক:

শিল্প খাতে বিশেষ অবদানের জন্য শিল্প মন্ত্রণালয় ঘোষিত পৃথক দুটি ক্যাটাগরিতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্প পুরস্কার ও রাষ্ট্রপতি শিল্প উন্নয়ন পুরস্কার এর জন্য নির্বাচিত হয়েছে নরসিংদীর তিন শিল্প প্রতিষ্ঠান।

এরমধ্যে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্প পুরস্কারে বৃহৎ শিল্প ক্যাটারিতে দ্বিতীয় ও তৃতীয় স্থানে নির্বাচিত হয়েছে মাধবদীর ইঞ্জিনিয়ার মোঃ ফায়জুর রহমান ভূঞা জুয়েল (সিআইপি)'র মালিকানাধীন জজ ভূঞা গ্রুপের সহযোগী প্রতিষ্ঠান জজ ভূঞা টেক্সটাইল মিলস ও নরসিংদীর আব্দুল কাদির মোল্লার মালিকানাধীন থার্মেক্স গ্রুপের সহযোগী প্রতিষ্ঠান আদুরি অ্যাপারেলস্।

অপরদিকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্প পুরস্কারে মাঝারি শিল্প ক্যাটাগরিতে তৃতীয় ও রাষ্ট্রপতি শিল্প উন্নয়ন পুরস্কারে ক্ষুদ্র শিল্প ক্যাটাগরিতে দ্বিতীয় স্থান অর্জন করেছে মাধবদীর নিজাম উদ্দিন ভুঁইয়া লিটন (সিআইপি)'র মালিকানাধীন রমনী গ্রুপের সহযোগী প্রতিষ্ঠান মাধবদী ডাইং এন্ড ফিনিশিং মিলস লিমিটেড। গত ২৭ জুন শিল্প মন্ত্রণালয় কর্তৃক জারিকৃত পৃথক প্রজ্ঞাপনে এসব নাম ঘোষণা করা হয়।

জাতীয় অর্থনীতিতে শিল্পখাতের অবদানের স্বীকৃতি, প্রণোদনা সৃষ্টি ও সৃজনশীলতাকে উৎসাহের লক্ষ্যে প্রচলিত রাষ্ট্রপতি শিল্প উন্নয়ন পুরস্কারের পাশাপাশি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মরণে দেশে প্রথমবার বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্প পুরস্কার দিতে যাচ্ছে শিল্প মন্ত্রণালয়। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্প পুরস্কারে ৭টি ক্যাটাগরিতে ২৩জন ও রাষ্ট্রপতি শিল্প উন্নয়ন পুরস্কারে ৬টি ক্যাটাগরিতে ১৯জনসহ মোট ৪২জনকে এ পুরস্কারের জন্য মনোনীত করা হয়েছে।

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্প পুরস্কারের জন্য নির্বাচিত প্রতিষ্ঠানগুলো হলো বৃহৎ শিল্প শ্রেণিতে- স্কয়ার ফার্মাসিউটিক্যালস, জজ ভূঞা টেক্সটাইল মিলস, আদুরি অ্যাপারেলস ও ইউনিভার্সেল জিনস; মাঝারি শিল্প শ্রেণিতে- অকো-টেক্স, ফরচুন সুজ, রহিম আফরোজ রিনিউয়েবল এনার্জি ও মাধবদী ডাইং ফিনিশিং মিলস; ক্ষুদ্র শিল্প শ্রেণিতে আমান প্লাস্টিক ইন্ডাস্ট্রিজ, এস আর হ্যান্ডিক্র্যাফটস ও আলিম ইন্ডাস্ট্রিজ; মাইক্রো শিল্প শ্রেণিতে মেসার্স কারুকলা, ট্রিম টেক্স বাংলাদেশ ও জনতা ইঞ্জিনিয়ারিং; হাইটেক শ্রেণিতে সার্ভিস ইঞ্জিন, সুপার স্টার ইলেকট্রনিকস ও মীর টেলিকম; হস্ত ও কারুশিল্প শ্রেণিতে ক্ল্যাসিক্যাল হ্যান্ডমেইড প্রোডাক্টস, আয়োজন ও সোনারগাঁ নকশি কাঁথা মহিলা উন্নয়ন সংস্থা; কুটির শিল্প শ্রেণিতে কুমিল্লা আর্টস অ্যান্ড ক্র্যাফটস, রং মেলা নারীকল্যাণ সংস্থা ও অগ্রজ।

রাষ্ট্রপতির শিল্প উন্নয়ন পুরস্কারের জন্য নির্বাচিত প্রতিষ্ঠানগুলো হলো—বৃহৎ শিল্প শ্রেণিতে বিআরবি কেবল ইন্ডাস্ট্রিজ, ব্রিটিশ আমেরিকান টোব্যাকো বাংলাদেশ কোম্পানি, মীর সিরামিক ও জাবের অ্যান্ড জোবায়ের ফ্রেবিকস; মাঝারি শিল্প শ্রেণিতে বেঙ্গল পলিমার ওয়্যারস, নোমান টেরি টাওয়েল মিলস, অকো-টেক্স, ক্রিমসন রোসেলা সি ফুড; ক্ষুদ্র শিল্প শ্রেণিতে প্রমি অ্যাগ্রো ফুডস, মাধবদী ডাইং ফিনিশিং মিলস ও এপিএস হোল্ডিংস; মাইক্রো শিল্প শ্রেণিতে মাসকো ডেইরি এন্টারপ্রাইজ, খান বেকেলাইট প্রোডাক্টস ও র‌্যাভেন অ্যাগ্রো কেমিক্যালস; কুটির শিল্প শ্রেণিতে কোর-দি জুট ওয়ার্কস ও সামসুন্নাহার টেক্সটাইল মিলস এবং হাইটেক শ্রেণিতে ওয়ালটন হাই-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ, ইনফরমেশন টেকনোলজি কনসালট্যান্টস ও সামিট কমিউনিকেশনস।

প্রসঙ্গত, শিল্প উদ্যোক্তা ও শিল্প প্রতিষ্ঠানগুলোর সৃজনশীলতাকে উৎসাহ ও তাদের অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ ২০১৩ সালে চালু হওয়া রাষ্ট্রপতি শিল্প পুরস্কারের পাশাপাশি ২০১৯ সালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব শিল্প পুরস্কার নীতিমালা প্রণয়ন করে সরকার। ওই বছরের ১ জুলাই মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের জাতীয় পুরস্কার-সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটি নীতিমালাটির অনুমোদন দেয়। মূলত শিল্প খাতে অবদানের স্বীকৃতি স্বরূপ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মরণে এ শিল্প পুরস্কারের প্রবর্তন করা হয়।

এতে প্রত্যেক ক্যাটাগরির প্রথম পুরস্কার হিসেবে তিন লাখ টাকা ও ২৫ গ্রাম স্বর্ণখচিত ক্রেস্ট, দ্বিতীয় পুরস্কার দুই লাখ টাকা ও ২০ গ্রাম স্বর্ণখচিত ক্রেস্ট এবং তৃতীয় পুরস্কার এক লাখ টাকা ও ১৫ গ্রাম স্বর্ণ খচিত ক্রেস্ট প্রদানের কথা রয়েছে।