এআই শনাক্ত করবে প্রোস্টেট ক্যানসার

১০ অক্টোবর ২০১৯, ০৮:২৪ পিএম | আপডেট: ২২ নভেম্বর ২০১৯, ০২:১৩ এএম


এআই শনাক্ত করবে প্রোস্টেট ক্যানসার

টাইমস ডেস্ক:

দীর্ঘদিনের গবেষণার পর প্রোস্টেট ক্যানসার শনাক্ত করতে পারে এমন একটি আর্টিফিশিয়াল ইন্টিলিজেন্স সিস্টেম (এআই) তৈরি করতে সক্ষম হয়েছে আমেরিকার ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল গবেষক।

‘ফোকালনেট’ নামের এই কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা সিস্টেমটি স্বয়ংক্রিয়ভাবেই একাধারে রোগ নির্ণয় এবং ম্যাগনেটিক ইমেজ প্রসেসিং ও স্ক্যানিংয়ের মাধ্যমে রোগের বর্তমান অবস্থা প্রায় নিখুঁতভাবেই বলে দিতে পারে। এই সিস্টেমটি কোনোরকম সাহায্য ছাড়াই একজন দক্ষ রেডিওলজিস্টের কাজ নিজ থেকেই করতে পারে বলে দাবি গবেষকদের।

গবেষকদের পরীক্ষায় দেখা গেছে, ‘ফোকালনেট’ এমআরআইসহ বিভিন্ন স্ক্যান রিপোর্ট পড়তে এবং বুঝতে শতকরা ৮০.৫ ভাগ সময় সফল হয়েছে। অন্যদিকে আইইইই এর গবেষণামতে, গত ১০ বছরে এই একই কাজে মানুষের সাফল্যের হার শতকরা ৮৩.৯ ভাগ।

সাধারণত একজন রেডিওলজিস্টকে টিউমারের ঠিক কোন জায়গায়টায় ক্যানসার শুরু হয়েছে বা শুরু হওয়ার সম্ভাবনা আছে এই জিনিসটা সঠিকভাবে বুঝতে দীর্ঘদিন ধরে চর্চা করতে হয়। কারণ স্ক্রিণে ভেসে উঠা ছবিগুলো দেখেই রেডিওলজিস্টকে অনুমান করে নিতে হয় রোগ সম্পর্কে। এই অনুমান মাঝেমধ্যে ভুল হওয়ার সম্ভাবনাও থাকে বা সবসময় নিঁখুত ও হয় না। আমরা নিশ্চই এরকম ব্যাপার অনেক শুনেছি যে, এমআরই রিপোর্টে ভুল এসেছে বা রিপোর্ট ভুলের কারণে রোগীর মৃত্যু হয়েছে।

রেডিওলজিস্টদের যথাযথ প্রশিক্ষণ এবং অভিজ্ঞতার অভাবেই এমন হয়ে থাকে। আর এই ধরনের ভুল রোগীর জীবনে অনিশ্চিত মৃত্যুর দিকে ঠেলে দেয়।

এই বিষয়টি মাথায় রেখেই কাজ শুরু করেন ক্যালিফোর্নিয়া বিশ্ব্যবিদ্যালয়ের গবেষকদল। ফোকালনেট সিস্টেমটি নিউরাল নেটওয়ার্কের উপর ভিত্তি করে তৈরি করা হয়েছে। নির্ভুলভাবে ইমেজ প্রসেসিং করে নিঁখুত তথ্য দেওয়ার জন্য এই সিস্টেমটিতে প্রায় ১ মিলিয়ন ভেরিয়েবল ব্যবহার করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন গবেষকরা।

প্রাথমিক পর্যায়ে ৪১৭ জন প্রোস্টেস্ট ক্যানসার আক্রান্ত রোগীর শরীরের এবং ক্যানসার আক্রান্ত স্থানের যাবতীয় তথ্য উপাত্ত নিয়ে এই আর্টিফিশিয়াল ইন্টিলিজেন্স সিস্টেমটিকে প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়।

ফোকালনেট আর্টিফিশিয়াল ইন্টিলিজেন্স সিস্টেমটি নির্ভুলভাবে রোগ নির্ণয় এবং রোগের বর্তমান অবস্থা জানাতে একজন দক্ষ রেডিওলজিস্টের চেয়ে ভালো কাজ করবে বলে গবেষকদের দাবি । এছাড়া এটির ব্যবহারে সময় সাশ্রয়ী এবং খরচও অনেক কম হয়।


বিভাগ : জীবনযাপন