তিন বছরে ৮টি বেড়ে সুন্দরবনে বাঘের সংখ্যা ১১৪

২৯ জুন ২০১৯, ০৫:৩৪ পিএম | আপডেট: ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:২৮ পিএম


তিন বছরে ৮টি বেড়ে সুন্দরবনে বাঘের সংখ্যা ১১৪
সংগৃহিত ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদক:

পরিবেশ, বন ও জলবায়ু পরিবর্তন মন্ত্রী মো. শাহাব উদ্দিন জানিয়েছেন, তিন বছরে সুন্দরবনে বাঘের সংখ্যা আটটি বেড়ে বর্তমানে বাঘের সংখ্যা ১১৪টিতে  দাড়িয়েছে। এর আগে ২০১৫ সালে বনশুমারি অনুযায়ী বাঘের সংখ্যা ছিল ১০৬টি। ২০১৮ সালে ক্যামেরা ট্রাকিং এর মাধ্যমে জরিপ অনুযায়ী বাঘের সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়ে হয়েছে ১১৪টি।

শনিবার (২৯ জুন) সকালে জাতীয় সংসদে মানিকগঞ্জ-২ আসনের সংসদ সদস্য মমতাজ বেগমের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এসব তথ্য জানিয়েছেন।

সুন্দরবনের ফরেস্ট ইনভেনটরি ১৯৮৫, ১৯৯৫ ও ২০১৩ সালের প্রতিবেদন তুলে ধরে মন্ত্রী এসময় বলেন, সুন্দরবনে এককভাবে সুন্দরী গাছ যথাক্রমে ২০ শতাংশ, ১৮ দশমিক ২০ শতাংশ এবং ১৮ দশমিক ভূমি বন আচ্ছাদিত আছে। সুন্দরবনে সুন্দরী গাছের পরিমাণ কিছুটা কমতি থাকলেও গেওয়া গাছের পরিমাণ তুলনামূলক বৃদ্ধি পাচ্ছে।

শাহাব উদ্দিন আরও জানান, সুন্দরবনের জীববৈচিত্র্য সংরক্ষণের জন্য বাংলাদেশ পরিবেশ সংরক্ষণ আইন ১৯৯৫ এর ৫ (১) ধারায় প্রদত্ত ক্ষমতাবলে ১৯৯৯ সালে সুন্দরবন রিজার্ভ ফরেস্টের বাইরের চতুর্দিকে ১০ কিলোমিটার বিস্তৃত এলাকাকে সরকার প্রতিবেশগত সংকটাপন্ন এলাকা (ইসিএ) হিসেবে ঘোষণা করে।

তিনি বলেন, সুন্দরবন প্রতিবেশগত সংকটাপন্ন এলাকায় পরিবেশ দূষণকারী শিল্প কারখানা স্থাপনে পরিবেশগত ছাড়পত্র প্রদাণ করা হয় না। সুন্দরবন ইসিএ এলাকায় অবস্থিত বিদ্যমান শিল্প কারখানাগুলোতে মালিকগণ কর্তৃক পরিবেশ ও প্রতিবেশ দূষণের প্রয়োজনীয় প্রতিকারমূলক ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া সুন্দরবন রক্ষায় ৪৫৯ কোটি ৯২ লাখ ৫৬ হাজার ৯শ টাকার পাঁচ বছর মেয়াদী প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে। আগামী ১ জুলাই এ প্রকল্পের কাজ শুরু করা হবে।


বিভাগ : বাংলাদেশ