নিয়মনীতি উপেক্ষা করে নরসিংদী চেম্বারের বার্ষিক সাধারণ সভায় অসন্তোষ

২৯ আগস্ট ২০২২, ০৩:৫১ পিএম | আপডেট: ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৪:৩৭ পিএম


নিয়মনীতি উপেক্ষা করে নরসিংদী চেম্বারের বার্ষিক সাধারণ সভায় অসন্তোষ

নিজস্ব প্রতিবেদক:
কোন প্রকার নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করে অনুষ্ঠিত হয়েছে নরসিংদী চেম্বার অব কমার্সের (এনসিসিআই) বার্ষিক সাধারণ সভা ২০২১। গত শনিবার দুপুরে নরসিংদীর মাধবদীর একটি রিসোর্টে এই সভা করা হয়।
দফায় দফায় কমিটির মেয়াদ বৃদ্ধি, টানা দুই বছর সাধারণ সভা না করা ও সদস্যদের হিসাব বিবরণী না পাঠানোসহ নানা অনিয়মের মধ্য দিয়ে স্বনামধন্য এই ব্যবসায়ী সংগঠনের বার্ষিক সাধারণ সভায় সদস্যদের মধ্যে অসন্তোষ ছড়িয়ে পড়েছে। তবে এসব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন নরসিংদী চেম্বার অব কমার্সের আলী হোসেন শিশির। 

সংগঠনটির সাবেক নেতা ও সদস্যদের অভিযোগ, সংগঠনটির নিয়ম অনুযায়ী (সংঘবিধির ৩৭ ধারায়) বার্ষিক সাধারণ সভা করার ১৪ দিন আগে রেজিস্ট্রি ডাকযোগে সদস্যদের কাছে হিসাব বিবরণী পাঠানোসহ সাধারণ সভা ডাকতে হয়। বর্তমান কমিটি তা না করে ৭ দিন আগে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক পোস্টে আমন্ত্রণ জানিয়ে ২৭ আগস্ট সাধারণ সভা ডাকেন। এতে সংগঠনটির বেশিরভাগ সদস্য অংশগ্রহণ করতে পারেননি।


এছাড়া বার্ষিক সাধারণ সভা না করে দফায় দফায় কমিটির মেয়াদ বৃদ্ধি করে দুই বছরের কমিটি সাড়ে ৩ বছর ধরে দায়িত্ব পালন করে আসছেন। পরে একটি রিসোর্টে পিকনিকের আয়োজন করে ২০১৯ ও ২০২০ সালের এক সঙ্গে বার্ষিক সাধারণ সভা করার দাবি করে বর্তমান কমিটি। নিয়ম অনুযায়ী একই সঙ্গে দুই বছরের বার্ষিক সাধারণ সভা করার বিধান এই ব্যবসায়ী সংগঠনে নেই। সদস্যদের পক্ষ থেকে বার্ষিক সাধারণ সভা করার জন্য বার বার চিঠি দেয়া হলেও নরসিংদী চেম্বার অব কমার্সের প্রেসিডেন্ট আলী হোসেন শিশির তা কর্ণপাত না করে মনগড়া মত সংগঠনের কার্যক্রমকে প্রশ্নবিদ্ধ করে তুলেন। সর্বশেষ গত শনিবার দুপুরে অনিয়তান্ত্রিকভাবে বার্ষিক সাধারণ সভা করা হয়।
চেম্বারের জমি ক্রয়ে অনিয়ম, আয় ব্যয় হিসাবে গড়মিলসহ নানা অনিয়মের কারণে নরসিংদী চেম্বার অব কমার্সের বর্তমান কমিটি তথা প্রেসিডেন্ট নিয়ম অনুযায়ী বার্ষিক সাধারণ সভা করতে অনাগ্রহ দেখান বলে অভিযোগ ব্যবসায়ীদের।

এর আগে নরসিংদী নরসিংদী চেম্বার অব কমার্সের প্রেসিডেন্ট আলী হোসেন শিশির নিয়ম অনুযায়ী তফসিল ঘোষণা করে নির্বাচন বোর্ড ও আপীল বোর্ড গঠনের জন্য নরসিংদীর জেলা প্রশাসকে চিঠি প্রদান করেন। পরে আগামী ১৫ অক্টোবর নরসিংদী চেম্বার অব কমার্সের সাধারণ নির্বাচনের জন্য তারিখ নির্ধারণ করা হলেও তা স্থগিত করা হয়। সাধারণ সভার আয়োজন না করা, সঠিক সময় না থাকাসহ নানা অনিয়ম থাকায় গত ২৪ আগস্ট নরসিংদী চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রির নির্বাচন বোর্ড ও আপীল বোর্ড গঠনের অফিস আদেশ বাতিল করেন নরসিংদীর জেলা প্রশাসক আবু নইম মোহাম্মদ মারুফ খান।

সদস্য তৌকির আহমেদ বলেন, আমি একজন সদস্য হিসেবে ২০২১ সালের ১০ অক্টোবর ও ২০২২ সালের ২৬ জুলাই লিখিতভাবে চেম্বারকে অনুরোধ করেছি যথাযথভাবে এজিএম করার জন্য। কিন্তু তারা কোন কর্নপাত করেননি। তাতে চেম্বারের সার্বিক আয় ব্যয় ও কার্যক্রমের স্বচ্ছতা নিয়ে সন্দেহ তৈরি হয়েছে। এখন তারা যেটা করেছে এটাকে এজিএম বলার কোন সুযোগ নেই। সর্বোচ্চ একটা প্যানেল পরিচিতির ক্যাম্পেইন বলা যায়। চেম্বারের বর্তমান পর্ষদের এসব অনিয়মতান্ত্রিক কার্যক্রমের জন্য সদস্যরা বিভ্রান্ত হচ্ছেন। ৭ দিনের নোটিশে কখনোই এজিএম সম্ভব নয়। তাছাড়া পূর্বের এজিএম বাদ রেখে পরবর্তী কোন এজিএম করাটাও সংঘবিধি বহির্ভূত।

সাবেক পরিচালক মমিনুর রহমান বলেন, বর্তমান কমিটি চেম্বার পরিচালনায় কোন নিয়মই মানেননি। মনগড়া মতো যা খুশি করে যাচ্ছেন। সভা করার ১৪ দিন আগে রেজিস্ট্রি ডাকযোগে সদস্যদের কাছে হিসাব বিবরণী পাঠানোসহ দাওয়াপত্র পাঠিয়ে সাধারণ সভা করার নিয়ম থাকলেও তা মানা হয়নি। এতে সংগঠনটির সুনাম ক্ষুন্ন হয়েছে।

নরসিংদী নরসিংদী চেম্বার অব কমার্সের সাবেক ভাইস প্রেসিডেন্ট মো: শফিকুল ইসলাম শেখ তুলু বলেন, এনসিসিআইয়ের বিগত ৩ বছরের কোন এজিএম নিয়ম মেনে করা হয়নি। সেক্ষেত্রে আয় ব্যয়ের হিসাব নিয়ে অস্বচ্ছতা ও প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। তারা গঠনতন্ত্রের কোন ধারাকে তোয়াক্কা করছে না।

যোগাযোগ করা হলে নরসিংদী চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাষ্ট্রিজ এর প্রেসিডেন্ট আলী হোসেন শিশির বলেন, নিয়মতান্ত্রিকভাবেই সব করা হয়েছে। সবাইকে চিঠি দিয়েই সভা করা হয়েছে। কেউ চিঠি পেয়েছে কী না সেটা আমার দেখার বিষয় নয়। করোনার কারণে দুই বছরের সাধারণ সভা এক সঙ্গে করা হয়েছিল। যারা নির্বাচন চায় না তারাই এসব মিথ্যা অভিযোগ করছেন।



এই বিভাগের আরও